Opu Hasnat

আজ ২০ জুন বৃহস্পতিবার ২০২৪,

বাগেরহাটে পরিবেশবান্ধব নির্মাণ সামগ্রী প্রদর্শনী মেলা অনুষ্ঠিত বাগেরহাট

বাগেরহাটে পরিবেশবান্ধব নির্মাণ সামগ্রী প্রদর্শনী মেলা অনুষ্ঠিত

বাগেরহাটে প্রথমবারের মত পরিবেশবান্ধব নির্মাণ সামগ্রী প্রদর্শনী মেলা অনুষ্ঠিত হয়েছে। মঙ্গলবার (৬ জুন) সকালে খানজাহান আলী ডিগ্রি কলেজ মাঠে ফিতা কেটে এই মেলার উদ্বোধন করা হয়। উপকুলীয় অঞ্চলে পরিবেশবান্ধব নির্মাণ সামগ্রী ও প্রযুক্তি সম্প্রসারণ প্রকল্পের আওতায় পল্লী কর্ম-সহায়ক ফাউন্ডেশনের সহযোগীতায় বেসরকারী উন্নয়ন সংস্থা কোডেক এই মেলার আয়োজন করে।

পরে আলোচনা সভায় অন্যন্যদের মধ্যে বক্তব্য দেন, সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা রুবাইয়া তাসনিম, ভাইচ চেয়ারম্যান রিজিয়া পারভিন, খানজাহান আলী ডিগ্রি কলেজের অধ্যক্ষ খন্দকার আছিব উদ্দীন রাখি, কোডেকের প্রকল্প ব্যবস্থাপক লোকমান হোসেন, স্বপ্নযাত্রা প্রকল্পের প্রকল্প সম্বন্নয়কারী সৈয়দ মাহবুবুর রহমান প্রমুখ।

বক্তরা বলেন, ইট ভাটায় নির্গত ধোয়া থেকে পরিবেশ দূষণরোধ করতে বাংলাদেশ সরকারের গৃহীত সিদ্ধান্ত বাস্তবায়নের লক্ষ্যে পিকেএসএফ এর সহায়তায় কোডেক এই ধরণের প্রকল্প বাস্তবায়ন করছে। যেখানে পোড়া মাটির ইটের বিকল্প নির্মাণ সামগ্রী হিসেবে পরিবেশবান্ধব হলো ব্লক, ইউনি ব্লক, সলিড ব্লক, পার্কিং টাইলস ইত্যাদি পণ্যের উদ্যোক্তা তৈরী হচ্ছে এবং ব্যবসা সম্প্রসারণের মাধ্যমে সাবলম্বী হচ্ছে। পরিবেশের সুরক্ষায় সরকারের সিদ্ধান্ত মোতাবেক মাটি পোড়া ইটের পরিবর্তে পরিবেশ বান্ধব ব্লক উৎপাদন, ব্যবহার বৃদ্ধি, বাজার সৃষ্টি ও প্রযুক্তি সম্প্রসারনে এই মেলা কার্যকর ভূমিকা রাখবে। 

পাশাপাশি কোডেক এবং পিকেএসএফ কে এই ধরনের প্রকল্প বাস্তবায়ন করায় ধন্যবাদ জানিয়ে উদ্যোক্তাদের জন্য বহুল মার্কেট সৃষ্টির পরামর্শ দেন বক্তারা।
কোডেকের সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা জানান,  তারা পরিবেশবান্ধব নির্মাণ সামগ্রীর ক্ষুদ্র উদ্যোক্তা তৈরি, রাজমিস্ত্রিদের দক্ষতা উন্নয়ন, গ্রাহক পর্যায়ে ব্যবহার বৃদ্ধি ও কারখানায় পরিবেশগত চর্চা নিশ্চিত করছেন।

এছাড়াও বিনামূল্যে প্রশিক্ষণ, বুয়েট থেকে টেস্টিং ও সার্টিফিকেট প্রদান, স্বাস্থ্য সুরক্ষা সরঞ্জাম বিতরণ, লার্নিং ভিজিট, মডেল স্থাপনা তৈরি, প্রকল্পের ওয়েবসাইট ও সামাজিক যোগাযোগ  মাধ্যমে উদ্যোক্তাদের পণ্য বিক্রয়সহ বিভিন্ন সেবা প্রদান করা হচ্ছে।

এ পর্যন্ত প্রকল্প এলাকায় কংক্রিটের ব্লক দিয়ে ৫টি বাড়ি, দুটি রাস্তা নির্মিত হয়েছে। বিশ জন উদ্যোক্তা নিয়মিত উৎপাদন করে সেগুলো বিক্রি করছেন। বিনামূল্যে প্রশিক্ষণ শেষে মেশিন কিনে ব্যবসা শুরুর অপেক্ষায় রয়েছেন আরো প্রায় ৩০ জন উদ্যোক্তা।

মেলা চলাকালীন আগ্রহী দর্শণার্থীদের সাথে উদ্যোক্তাদের বিভিন্ন পণ্যের উৎপাদন প্রক্রিয়া, গুণগত মান, ব্যবহার ও বাজার ব্যবস্থাপনা নিয়ে মতামত বিনিময় হয়।

মেলায় বিভিন্ন সরকারী ও বেসরকারী সংস্থার কর্মকর্তা, উদ্যোক্তা, শিক্ষার্থীরা অংশ নেন।