Opu Hasnat

আজ ১৬ জুন বুধবার ২০২১,

জুনিয়রদের ছুটিকে আনন্দময় করে তুলল ডিপিএস এসটিএস স্কুল ঢাকার সিনিয়র শিক্ষার্থীরা শিক্ষা

জুনিয়রদের ছুটিকে আনন্দময় করে তুলল ডিপিএস এসটিএস স্কুল ঢাকার সিনিয়র শিক্ষার্থীরা

সম্প্রতি, ডিপিএস এসটিএস স্কুল ঢাকার শিক্ষার্থীদের একটি স্বেচ্ছাসেবক দল তাদের জুনিয়রদের একঘেয়ে ছুটির দিনগুলোকে উপভোগ্য করে তুলতে বিভিন্ন আনন্দদায়ক কার্যক্রমের সমন্বয়ে একটি অসাধারণ উদ্যোগ নিয়েছে। 

বৈশ্বিক মহামারি বিশ্বজুড়ে আঘাত হানার পর থেকেই সবাই কঠোর নিয়মবিধি মেনে জীবনযাপন করছে। একইভাবে শিক্ষার্থীদেরও ঘরের চার দেয়ালের মাঝে আবদ্ধ থাকতে হচ্ছে। স্কুল বন্ধের কারণে ডিপিএস এসটিএস স্কুল ঢাকার শিক্ষার্থীদের এই পরিস্থিতির মধ্য দিয়ে যেতে হচ্ছে, যা তাদের মানসিক সুস্থতার ওপর বিরূপ প্রভাব ফেলছিল। এই পরিস্থিতি বিবেচনায়, দশম গ্রেড সম্পন্ন করা ডিপিএস এসটিএস স্কুলের একদল শিক্ষার্থী জুনিয়র শিক্ষার্থীদের মনোবলকে উজ্জীবিত করার পরিকল্পনা করে।

আকিল রাফিদ, ফাইজাহ এহসান, শাবকাদ আহমেদ, সায়রা আরিজ, আনিস হালদার, উম্মে আফা ইবনাত মাসুদ, অভীক হোসেন এবং সালোনি ঘোষ শেজার সমন্বয়ে তারা একটি দল গঠন করে। ‘ভ্যাকেশন মাস্টার্স’ নামে অভিহিত এই দলটি, একঘেয়েমি দ‚র করতে এবং জুনিয়রদের জন্য লকডাউনকে ফলপ্রস‚ করে তুলতে তিনটি ভিন্ন আনন্দপ‚র্ণ কাজের পরিকল্পনা করে।

প্রথম কাজটি ছিল ‘মাস্ক ডেকোরেশন কম্পিটিশন’, যেখানে এই সঙ্কটকালীন সময়ে মাস্ক পড়ার প্রয়োজনীয়তা নিয়ে সচেতনতা বাড়ানোর লক্ষ্যে ৫ম-৭ম গ্রেডের শিক্ষার্থীদের সৃজনশীলতা ব্যবহার করে তাদের মাস্ককে মনমতো সাজাতে বলা হয়েছিল। দ্বিতীয় কার্যক্রম ছিল ‘ট্রিভিয়া টুর্নামেন্ট’। এটি ছিল লাইভ রোমাঞ্চকর একটি ট্রিভিয়া কুইজ, যা ডিপিএস এসটিএস ঢাকার ফেসবুক পেইজে প্রচারিত হয়। কুইজের প্রশ্নগুলোর মাধ্যমে অ্যাকাডেমিক বিষয়ের বাইরে শিক্ষার্থীদের জ্ঞান সম্পর্কে ধারণা পাওয়া গেছে। এতে ‘হাউ ওয়েল ডু ইউ ঢাকা সিটি?’ শীর্ষক একটি বিশেষ পর্ব ছিল, যা শিক্ষার্থীদের রাজধানী ঢাকা সম্পর্কিত বিভিন্ন তথ্য মনে করিয়ে দেয়। 

শেষের কাজটি ছিলো সবচেয়ে অসাধারণ, যেখানে ঈদ উপলক্ষে ‘স্পেশাল জার্নি অব গ্র্যাটিটিউড’ এর মধ্য দিয়ে ৫-১২ গ্রেডের শিক্ষার্থীরা কার্ড বানিয়ে ঈদের শুভেচ্ছা জানায় এবং ওয়ার্কার, বাড়ির সহকর্মী, ড্রাইভার, বাড়ির দারোয়ান এবং কেয়ার টেকারসহ সকল সম্মুখসারীর যোদ্ধা, যারা বৈশ্বিক মহামারির পুরো সময়জুড়ে নিজেদের জীবন বাজি রেখে অন্যদের সহায়তা করেছে, তাদের প্রতি কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করে। এসব প্রকৃত হিরোদের ধন্যবাদ জানাতে শক্তিশালী বার্তাসহ একটি আবেগময় ভিডিও তৈরি করা হয়। ভিডিওটি স্কুলের ফেসবুক পেইজে অথবা এই লিংকের মাধ্যমে দেখা যাবে : https://fb.watch/5zC8buLAb-/।

এই উদ্যোগটি সবার কাছ থেকে ব্যাপক প্রশংসা কুড়ায়, যা ভ্যাকেশন মাস্টারদের অত্যন্ত অনুপ্রাণিত করেছে। তারা আশা করছে, খুব শীঘ্রই তারা আরও অনেক চমকপ্রদ কার্যক্রমের আয়োজন করবে।

এই বিভাগের অন্যান্য খবর