Opu Hasnat

আজ ২৯ জানুয়ারী রবিবার ২০২৩,

কিউরিয়াস মিডিয়ার ‌‘ই-বিজ ফেয়ার’ অনুষ্ঠিত অর্থ-বাণিজ্য

কিউরিয়াস মিডিয়ার ‌‘ই-বিজ ফেয়ার’ অনুষ্ঠিত

অনলাইন ব্যবসার সম্প্রসারণে ই-কমার্স ও এফ-কমার্স সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ মাধ্যম। আর এ দুটি মাধ্যমকে কাজে লাগিয়ে নারী উদ্যোক্তারা এগিয়ে যাচ্ছেন। করোনা মহামারিতে অনলাইন ব্যবসায় নতুন মাত্রা যুক্ত করেছে। সম্প্রতি অনলাইন ব্যবসায় নারীর উন্নয়ন ও অগ্রযাত্রাকে তুলে ধরতে ‘ই-বিজ ফেয়ার ২০২২’ শিরোনামে নারী উদ্যোক্তা মেলা সম্পন্ন করেছে কিউরিয়াস মিডিয়া।

রাজধানীর ধানমন্ডি ২৭ নম্বরে উইমেন ভলান্টিয়ার অ্যাসোসিয়েশনে (ডব্লিউভিএ) অনুষ্ঠিত দুই দিনব্যাপী মেলার প্রথম দিনে প্রধান অতিথি ছিলেন টেলিলিংক গ্রুপের চেয়ারম্যান মোহাম্মদ নিজাম উদ্দিন জিটু, মেলার উদ্বোধক ছিলেন ই-ক্লাবের সিনিয়র ভাইস প্রেসিডেন্ট মারুফ লিয়াকত ও ফ্যাশন ডিজাইনার নাহরিন চৌধুরী।

অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য দেন কিউরিয়াস মিডিয়ার ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) ও ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়নের (ডিইউজে) কল্যাণ সম্পাদক জুবায়ের রহমান চৌধুরী। এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন, কিউরিয়াস মিডিয়ার প্রধান নির্বাহী (সিইও) মাহমুদ সালেহীন, চিফ অফ অপারেশন (সিওও) আসিফ নেওয়াজ, কিউরিয়াস ইভেন্ট পরিচালক লিপি ঘোষ,  মোটিভেশনাল স্পিকার সোলাইমান আহমেদ জিসান এবং উদ্যোক্তাবান্ধব ই-কমার্স মার্কেটপ্লেস ই-বিডিবাজারের চেয়ারম্যান বাবুল হৃদয়।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বক্তারা বলেন, বর্তমান সরকারের সময়ে ব্যবসা-বাণিজ্যে নারীরা এগিয়ে যাচ্ছে। দেশের উন্নয়ন-সমৃদ্ধির অন্যতম অংশীদারও তারা। দেশীয় পণ্যের সম্প্রসারণে মেলার কোনো বিকল্প নেই। নারী উদ্যোক্তাদের বেশি পৃষ্ঠপোষকতা দিতেও সরকারের প্রতি আহবান জানান বক্তারা। 

মেলার দ্বিতীয় ও সমাপনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে ছিলেন ই-ক্লাবের প্রেসিডেন্ট মোহাম্মদ শাহরিয়ার খান। বিশেষ অতিথি ছিলেন ইউনিয়ন প্রোপার্টিজের ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) আবুল হাসেম, পেন্টাগন ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি), মডেল ও অভিনেতা অন্তু করিম এবং সোশ্যাল মিডিয়া ইনফ্লুয়েন্সার ও শিল্পী বর্ষা চৌধুরী।

দুই দিনব্যাপী মেলায় দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে আগত ৪০ জন নারী উদ্যোক্তার অংশগ্রহণে বাহারি পোশাক, শাড়ির স্টল, হাতের তৈরি পাট পণ্য, গামছা ও কাঠের তৈরি ইউনিক গহনা, বিভিন্ন প্রসাধনীর স্টল, ডায়েট প্রোডাক্ট, চাদর, হাতের কাজের বুটিকের জামা, শাড়ি ও ব্যাগ, ইনডোর প্ল্যান্ট, কাসা-পিতলের সরঞ্জাম, পিঠাপুলি ও ঘরোয়া বাহারি খাবারসহ নানা পণ্যের পসরায় সেজেছিল পুরো মেলা। মেলায় অংশ নেওয়া নারী উদ্যোক্তাদের সম্মাননা স্মারক হিসেবে ক্রেস্ট ও সনদ বিতরণ করা হয়।

এই বিভাগের অন্যান্য খবর